সর্বশেষ সংবাদ
  • Homepage
  • >
  • পলাশবাড়ী
  • >
  • পলাশবাড়ীতে প্রেমিকার ডাকে সাড়া দিতে গিয়ে গুরুত্বর আহত ও চুরির প্রস্তুতির মামলা

পলাশবাড়ীতে প্রেমিকার ডাকে সাড়া দিতে গিয়ে গুরুত্বর আহত ও চুরির প্রস্তুতির মামলা

  • mynews
  • ফেব্রুয়ারী 12, 2018

গাইবান্ধাপ্রতিনিধি
গাইবান্ধা জেলার পলাশবাড়ীতে প্রেমিকার ডাকে সাড়া দিতে গিয়ে গুরুত্বর আহত ও চুরির প্রস্তুতির মামলায় আসামী হলো সরকারি গ্রাফিক্স ইনষ্টিটিউটের মেধাবী ছাত্র সোহান (১৭)। গত ৭ ফেব্রয়ারী প্রেমিকের ডাকে সাড়া দিতে গিয়ে প্রেমিকের বাবা হাতে নির্যাতনে গুরুত্বর আহত হয় ও চুরির প্রস্তুতির অভিযোগে আসামী হয় সোহান।
এ ঘটনায় গত ৯ ফেব্রয়ারী সোহানের বিরুদ্ধে ৪৪৮/৩৮০/৫১১ পেনাল কোড -১৮৬০ অনাধিকারভাবে গৃহে প্রবেশ পূর্বক চুরি চেষ্টার অপরাধে দায়েরকৃত পলাশবাড়ী থানার জি আর মামলা নং ৮ /৩৭ মামলা সূত্রে জানা যায়, ঘটনার দিন রাতে ঘটনার দিন গত ৭ ফেব্রয়ারী রাত আনুমানিক ৯.৩০ মিনিটের সময় বাদির বাড়ীতে মটরসাইকেল চুরি করিতে আসিয়ে স্থানীয় সাক্ষিগণের উপস্থিতিতে আসামী সোহানসহ অজ্ঞাত আসামীরা পালিয়ে যান বলে উল্লেখ্য করিয়াছেন।

এদিকে ঘটনার নেপথ্য মুল ঘটনায় জানা যায়, উল্লেখিত মামলার বাদি’র এসএসসি পরীক্ষার্থী কন্যার সহিত দীর্ঘদিন হতে প্রেমের সম্পর্ক গড়ে উঠে। ঘটনার দিন বাবা মা বাড়ীতে না থাকার সুযোগে রাত ৮ টার পর বাদি’র কন্যার ব্যবহত মোবাইলের মাধ্যমে চুরির অভিযোগে অভিযুক্ত সোহান মন্ডল (১৭)কে বাদির বাড়ীতে ডেকে আনে। দীর্ঘ সময়ে বাদি নিজ বাড়ীতে অবস্থান করাকালিন সোহান মন্ডল বেধরক মারডাং করিয়া গুরুত্বর আহত অবস্থায় থানা পুলিশের হাতে সোর্পদ করে। থানা পুলিশের তদন্ত অফিসার নাবিউল আলম, এস আই তয়ন কুমার মন্ডল,এস আই নজরুল ইসলাম সহ সঙ্গীয় ফোর্স রাত আনুমানিক রাত ১১ টার সময় সোহান মন্ডলকে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে এর মেডিক্যাল আবাসিক অফিসার তনয় কুমারের উপস্থিতে প্রাথমিক চিকিৎসা প্রদান করে সোহানের অবস্থা গুরুত্বর হলে অত্র হাসপাতালে ভর্তি করে।
এসময় হাসপাতালে কিছু সময় হাতকড়া পড়া অবস্থায় ও পরবর্তীতে হাতকড়া খুলে পুলিশী হেফাজতে রেখে চিকিৎসা চলে। রাত আনুমানিক ১২ টার পর থানার এস আই রেজাউল ডিউটিরত পুলিশ সদস্যকে নিয়ে যান ও সোহানকে মৌখিকভাবে তার পরিবারের হেফাজতে দিয়ে দেন।
এ ঘটনায় এরপর দিন গত ৮ ফেব্রয়ারী দুপুরে হত্যার উদ্দেশ্যে সোহান কে বাড়িতে ডেকে মারডাং করে গুরুত্ব আহত ও মিথ্যা চোর আখ্যাদিয়ে পুলিশের হাতে সোর্পদের অভিযোগ করে থানার ডিউটি অফিসার এস আই জহুরুলের নিকট সোহানের মা জাহানারা বেগম এজাহার দাখিল করে। কিন্তু থানা পুলিশ এ মামলাটি দায়ের না করে।
স্থানীয় প্রভাবশালীদের যোগসাজসে এ প্রভাবশালী ইউপি সদস্য প্রেমিকার বাবা বাদি হয়ে মিথ্যা অভিযোগে গত ৯ ফেব্রয়ারী মামলা দায়ের করা হয়। মামলা নং ৮/৩৭।
মামলা দায়ের করা এখবর নিশ্চিত করে জানান থানা অফিসার ইনচার্জ মাহমুদুল আলম। তিনি বলে ঘটনাটি তদন্ত করা হচ্ছে তদন্ত শেষে আইনগত ব্যবস্থা গ্রহন করা হবে।
জেলা পুলিশের সিনিয়র সহকারি পুলিশ সুপার (সি – সার্কেল) রেজিনূর রহমান জানান, সোহানের মায়ের দায়েরকৃত অভিযোগটি তদন্তের ব্যবস্থা করা হবে।
সোহানের মা জাহানারা বেগম ঘটনার সুষ্টু তদন্ত করার দাবী জানিয়ে বলেন, আমার ছেলে কে যারা মিথ্যা অভিযোগে চোর বানিয়েছেন তাদের শাস্তি চাই।
সোহানের বিরুদ্ধে চুরি অভিযোগে মামলা দায়েরকারী বাদি খাইরুল ইসলাম এ প্রতিবেদককে উপরোক্ত সত্য ঘটনা ধামাচাপা দিতে ও নিরবতা পালন করতে ব্যাপক তোরজোড়, লবিং এবং সুপারিশ করেন।
মেধাবী এ ছাত্র সোহান পলাশবাড়ী সদরের নুরপুর গ্রামের মিন্টু মন্ডলের ছোট ছেলে। সে সরকারি গ্রাফিক্স ইনষ্টিটিউটের ১৭-১৮ সেশনের ছাত্র তাহার রোল নং ৯২৫৯৭৯ রেজি নং- ৮৭৪০৭৪।

Previous «
Next »
ফেব্রুয়ারী 2018
সোম বুধ বৃহ. শু. শনি রবি
« জানু.    
 1234
567891011
12131415161718
19202122232425
262728